আজ শনিবার| ২৭শে ফেব্রুয়ারি, ২০২১ ইং| ১৫ই ফাল্গুন, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ
আজ শনিবার | ২৭শে ফেব্রুয়ারি, ২০২১ ইং

শরীয়তপুর ভেদরগঞ্জ মুজিব শতবর্ষে প্রধানমন্ত্রীর বিশেষ উপহার গৃহহীনদের জমিও ঘর হস্তান্তর

শনিবার, ২৩ জানুয়ারি ২০২১ | ৫:৩৩ অপরাহ্ণ | 35 বার

শরীয়তপুর ভেদরগঞ্জ মুজিব শতবর্ষে প্রধানমন্ত্রীর বিশেষ উপহার গৃহহীনদের জমিও ঘর হস্তান্তর

শরীয়তপুর ভেদরগঞ্জ মুজিব শতবর্ষে প্রধানমন্ত্রীর বিশেষ উপহার গৃহহীনদের জমিও ঘর হস্তান্তর



নিজস্ব প্রতিবেদন

মুজিবশতবর্ষে প্রধানমন্ত্রীর বিশেষ উপহার হিসেবে শরীয়তপুরে ৬৯৯ ভূমিহীন ও গৃহহীন পরিবার পেল নির্মিত স্থায়ী বাসভবন। প্রধানমন্ত্রীর কাছ থেকে এমন উপহার পেয়ে আবেগে আপ্লুত ও উচ্ছ্বসিত হয়েছেন এসব পরিবারের মানুষেরা। আজ শনিবার (২৩ জানুয়ারি) সারাদেশে একযোগে ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে এসব বাড়ি হস্তান্তর করেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

ভূমিহীন ও গৃহহীন পরিবারকে জমি ও গৃহ প্রদান করেছে ভেদরগঞ্জ উপজেলা প্রশাসনের আয়োজনে ভিডিও কনফারেন্সে উপস্থিত থেকে বাংলাদেশ সরকারের পানিসম্পদ উপমন্ত্রী একেএম এনামুল হক শামীম (এমপি), শরীয়তপুর জেলা প্রশাসক পারভেজ হাসান, শরীয়তপুর জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ও জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি সাবেদুর রহমান খোকা সিকদার, শরীয়তপুর জেলা পুলিশ সুপার মো. আশরাফুজ্জামান, জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক বাবু অনল কুমার দে, ভেদরগঞ্জ উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান হুমায়ুন কবির মোল্লা, উপজেলা নিবার্হী কর্মকর্তা নাফিস আল হাসান।

এদিকে দুপুর দেড়টার দিকে সদর উপজেলার আংগারিয়া ইউনিয়নের দাঁতপুর পশ্চিম ভাসানচর গ্রামে ভূমিহীন ও গৃহহীন পরিবারের মধ্যে ঘরের চাবি তুলে দেন শরীয়তপুরের জেলা প্রশাসক পারভেজ হাসান। এ সময় সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মনদীপ ঘরাইসহ সরকারি কর্মকর্তা, সাংবাদিকগণ উপস্থিত ছিলেন।

জেলা প্রশাসক পারভেজ হাসান বলেন, মুজিব শতবর্ষ উপলক্ষে প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের আশ্রায়ণ-২ প্রকল্পের আওতায় শরীয়তপুরে ৬৯৯ ভূমিহীন ও গৃহহীন পরিবার ঘর পেয়েছে। এর মধ্যে আজ ৫০০ পরিবারকে ঘরের চাবি হস্তান্তর করা হয়েছে।

আর বাকি ১৯৯ পরিবারকে আগামী ৩০ জানুয়ারির মধ্যে দেয়া হবে। বঙ্গবন্ধুর কন্যা মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার প্রতিশ্রুতি বাস্তবায়নের লক্ষ্যে এসব ঘর দেয়া হচ্ছে। বাংলাদেশে আর কেউ গৃহহীন থাকবে না। আমি ঘর পাওয়া পরিবারগুলোর প্রতি উদাত্ত আহ্বান জানাচ্ছি তারা যেন তাদের সন্তানকে লেখাপড়া শিখিয়ে শিক্ষিত হিসেবে গড়ে তুলেন।

It's only fair to share...Share on FacebookShare on Google+Tweet about this on TwitterShare on LinkedIn

সর্বশেষ সংবাদ
ফেইসবুক পাতা